মইদুলের পরিবারের পাশে দাঁড়াল ইউনাইটেড কনট্রাকটারস ওয়াকাস ইউনিয়ন

রামকৃষ্ণ চ্যাটার্জী, পশ্চিম বর্ধমান: বাম যুব নেতারা বেকারদের চাকরির জন্য নবান্ন গিয়েছিল। কিন্তু পুলিশ তাদের সেই মিছিল নবান্ন অবধি পৌঁছাতে দেইনি। তার আগেই তাদের ওপর শুরু হয় লাঠিচার্জ, সাথে জল কামানও। সেইদিন বাম নেতা মইদুল ইসলামও যায় সেই নবান্ন অভিযানে এবং সেখানে তিনি পুলিশ পক্ষের লাঠিচার্জে গুরুতর ভাবে আহত হয়েছিলেন। আহত হওয়ার পর তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় কিন্তু কিছু দিন তিনি মারা যান।

মইদুলের পরিবারের পাশে দাঁড়াল ইউনাইটেড কনট্রাকটারস ওয়াকাস ইউনিয়ন৷ আজ ইউনাইটেড কনট্রাকটারস ওয়াকাস ইউনিয়ন ডি.এস.পি. -র থেকে পঁচিশ হাজার টাকা ডি.ওয়াই.এফ.আই রাজ্য কমিটির কাছে পাঠানো হয় কম: মইদুল ইসলাম মিদ্যার পরিবারকে পাঠানোর জন্য৷




%d bloggers like this: