করোনা পরিস্থিতিতে বন্ধ হল কলকাতা বইমেলা

নিজস্ব সংবাদদাতা: বর্তমান করোনা অতিমারী পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে ৪৫তম কলকাতা আন্তর্জাতিক বইমেলা ২০২১ অনুষ্ঠিত করা এখনই সম্ভব হচ্ছে না বলে জানাল গিল্ড। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়া মাত্রই জানিয়ে দেওয়া হবে বইমেলার পরবর্তী তারিখ।

বুধবার পাবলিশার্স অ্যান্ড বুকসেলার্স গিল্ডের বর্ধিত কার্যনির্বাহী কমিটির সভায় এমনই সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক সুধাংশুশেখর দে এবং সভাপতি ত্রিদিবকুমার চট্টোপাধ্যায় এই ব্যাপারে সকলের সহযোগিতা চেয়েছেন। এই বিষয়ে একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তিও দেওয়া হয়েছে মঙ্গলবার।

গত ২৪ ডিসেম্বর পাবলিশার্স অ্যান্ড বুকসেলার্স গিল্ডের একটি সভা হয়। সেখানে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে আপাতত কয়েক মাস পিছিয়ে দেওয়া হবে ৪৫তম কলকাতা আন্তর্জাতিক বইমেলা। তবে এদিন আনুষ্ঠানিকভাবে কলকাতা বইমেলা স্থগিত রাখার কথাই জানানো হল। কয়েক বছর ধরে সল্টলেকে করুণাময়ী মোড়ের কাছে আয়োজন করা হচ্ছিল বইমেলার। গিল্ডের সাধারণ সম্পাদক সুধাংশুশেখর দে জানিয়েছেন, সমীক্ষা করে দেখা গিয়েছে যে, করোনা পরিস্থিতিতে বইমেলাকে ঘিরে বিধাননগরে লক্ষাধিক মানুষ ভিড় করুন সেটা একেবারেই চাইছেন না স্থানীয় বাসিন্দারা।

প্রসঙ্গত, আন্তর্জাতিক ক্যালেন্ডার মেনে জানুয়ারি মাসের ২৭ তারিখ থেকে ফেব্রুয়ারির ৭ তারিখ পর্যন্ত বইমেলা হওয়ার কথা ছিল। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানকে শ্রদ্ধা জানিয়ে এবার কলকাতা বইমেলার থিম করা হয়েছিল বাংলাদেশ। আপাতত ২০২১–এর কলকাতা বইমেলার জন্য অনির্দিষ্টকালের জন্য অপেক্ষা করতে হবে বইপ্রেমী মানুষদের। যার পুরোটাই নির্ভর করছে করোনার ভ্যাকসিন বাজারে আসা ও মারণ ভাইরাসের প্রকোপ কমার ওপর। সূত্রের খবর অনুযায়ী, পরিস্থিতি সে রকম হলে এ বছর নাও হতে পারে কলকাতা বইমেলা।

করোনা পরিস্থিতির কারণে এই বছর প্রায় সব রকম উৎসব-অনুষ্ঠান, মেলা বন্ধই রাখা হচ্ছে রাজ্যজুড়ে। যদিও এরই মধ্যে পাবলিশার্স ও বুকসেলার্স গিল্ড ২০২১ সালে আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলার ৪৫ তম সংস্করণ আয়োজনের আশা প্রকাশ করেছিল। তবে কোভিড মহামারীর কারণে সাধারণ সময়সূচী পিছিয়ে জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে করা হয়েছিল। কিন্তু এবার কলকাতার ঐতিহ্যশালী বইমেলা স্থগিত হয়ে গেল।

পাবলিশার্স ও বুকসেলার্স গিল্ড বুধবার একটি প্রেস রিলিযে জানানো হয়েছে, “আজ গিল্ড হাউসে বর্ধিত কার্যনির্বাহী কমিটির সভায় সদস্যাদের সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী বর্তমান অতিমারির পরিস্থিতিতে ৪৫ তম আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলা ২০২১ অনুষ্ঠিত করা সম্ভব হচ্ছে না।” এছাড়াও জানানো হয়েছে যে, পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে বইমেলার পরিবর্তিত তারিখ জানা যাবে।
অন্যদিকে করোনার নয়া স্ট্রেন হানা দিয়েছে এ রাজ্যেও। এরই মধ্যে জমায়েত করা একেবারেই সঠিক হত না রাজ্যের মানুষদের জন্য। ২০২০ সালে আন্তর্জাতিক কলকাতা বইমেলাতে আনুমানিক ১০ লক্ষ মানুষ পরিদর্শন করেছিলেন। তাই রাজ্য সরকারের পরামর্শ অনুসারে গিল্ড বইমেলা স্থগিতের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।




%d bloggers like this: