শান্তিনিকেতনের রাস্তা নিয়ে দন্ধ চরমে, অনুব্রত মন্ডলের পুণঃ উদ্ভোধন

রোহিত সেখ , বীরভূম:শান্তিনিকেতনে রাস্তা নিয়ে কেন্দ্র সরকারের সঙ্গে রাজ্য সরকারের সংঘাত চরমে । একই রাস্তা দু দুবার উদ্বোধন,আশ্রম চত্বরেই বাইক নিয়ে দাপাদাপি, বাজানো হলো বক্স।

বৃহস্পতিবার বিশ্বভারতীর উপাসনা গৃহের সামনের রাস্তা দিয়ে দলীয় পতাকা নিয়ে বাইক মিছিল করেন কর্মী-সমর্থকরা। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘোষণা অনুযায়ী, বিশ্বভারতীর রাস্তা ফিরিয়ে নেওয়ার পর ওই রাস্তার উপর মাইক-বক্স বাজিয়ে অনুষ্ঠান শুরু করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। ঐতিহ্যবাহী উপাসনা গৃহের সামনে বড় বড় মাইক-বক্স বাজিয়ে চলছে অনুষ্ঠান। এই এলাকা ‘নো সাউন্ড জোন’ বা ‘নো হর্ন জোন’ হিসেবে ঘোষিত রয়েছে বহুদিন ধরেই। হঠাৎ করে পূর্ত বিভাগের তরফে বিশ্বভারতীর ভিতরে এই ধরনের অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে বিতর্ক দানা বেঁধেছে। ফলে, বিশ্বভারতীকে কেন্দ্র করে রাজ্য-কেন্দ্র সংঘাত ক্রমশ বেড়েই চলেছে।

এই রাস্তায় গত ১ তারিখে আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করেছিলেন বীরভূমের জেলাশাসক, পুলিশ সুপার ও শান্তিনিকেতনের আশ্রমের কে নিয়ে । কিন্তু সেই রাস্তায় আবারো উদ্বোধন করলেন বীরভূম জেলার তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। বিজেপির অভিযোগ বর্তমানে এই তৃণমূল সরকার সমস্ত দেশের ঐতিহ্য নষ্ট করছে। সেই দল আবার আমাদেরকে ভাষা জ্ঞান শিখানোর আসছে তাদের নেতাকর্মীরা যে ধরনের কার্যকলাপ করছে তাতে মানুষ পরিষ্কার ২০২১ এ তৃনমূল ফিনিশ।

অনুব্রত মণ্ডল বলেন, “বিশ্বভারতীর কাছ থেকে এই রাস্তা নেওয়া হয়েছে। এই রাস্তা সাধারণ মানুষ ব্যবহার করতে পারবে। নতুন করে এই রাস্তাটি তৈরি হবে।” যদিও বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ এই প্রসঙ্গে এখনও পর্যন্ত কোনও মন্তব্য করেনি ৷




%d bloggers like this: