ঝাড়গ্রামে শ্রমজীবী ক্যান্টিনের একশো দিন পূর্তি উপলক্ষে সভা

নিজস্ব সংবাদদাতা, ঝাড়গ্রাম : “আমরা জিতলেও মানুষের পাশে থাকবো হারলেও মানুষের পাশে থাকবো”। ঝাড়গ্রামে শ্রমজীবী ক্যান্টিনের একশো দিন পূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত এক সভায় বামফ্রন্ট নেতা তথা এআইএসএফ এর রাজ্য সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য স্বতরুপ ঘোষ ।

লকডাউনের জেরে বহু খেটে খাওয়া মানুষ কাজ হারিয়েছে। কেউ কাজ করতে গিয়ে ন্যায্যমূল্য পাচ্ছেন না। এই অবস্থায় তাদের সংসার চালানো দায় হয়ে উঠেছে এরমধ্যে কাজে বেরিয়ে অনেকের পক্ষে পর্যাপ্ত টাকা না থাকার কারণে দুপুরের আহার জুটছে না । সেই কারণে আজ থেকে প্রায় ১০০ দিন আগে ঝাড়গ্রাম শহরের ঝাড়গ্রাম স্টেশন সংলগ্ন সিপিআইয়ের দলীয় কার্যালয়ে একটি শ্রমজীবী ক্যান্টিন চালু হয়। যেখানে মাত্র কুড়ি টাকায় মিলবে পেটভর্তি আহার । সেই ক্যান্টিন আজ ১০০ দিনের পদার্পণ করেছে । ১০০ দিনে পদার্পণ করার উপলক্ষে ঝাড়গ্রাম স্টেশন সংলগ্ন শ্রমজীবী ক্যান্টিন থেকে সিপিআই, এএসএফআই, এআইওয়াইএ এবং এআইটিসিইউ এর কর্মী সমর্থকরা এক বিশাল মিছিল করেন । মিছিলের শেষে সুভাষ পার্ক এর মোড়ে সভা করেন বামফ্রন্ট কর্মীরা । সভায় উপস্থিত ছিলেন ঝাড়গ্রাম এর প্রাক্তন সিপিএমের সাংসদ পুলিনবিহারী বাস্কে, ঝাড়গ্রামের সিপিআই নেতা প্রতীক মৈত্র এছাড়াও একাধিক বামফ্রন্ট নেতৃত্বরা । বক্তব্য রাখার সময় এআইএসএফ এর রাজ্য সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য স্বতরুপ ঘোষ “আমরা জিতলেও মানুষের পাশে থাকবো হারলেও মানুষের পাশে থাকবো , আমি কলকাতা থেকে যখন ঝাড়গ্রাম আসছিলাম দেখলাম কোথাও লেখা আছে আমার দাদার অনুগামী আবার কোথাও লেখা আছে আমার দিদি অনুগামী । আর যারা এই শ্রমজীবী ক্যান্টিন চালাচ্ছি আমরা লাল ঝান্ডার অনুগামী ।




%d bloggers like this: