হরিপদ ব্যান্ডওয়ালা’র বিয়ে, শুভশ্রীর ‘ওয়াও’

বিনোদন ডেস্ক: টলিউডে এখন বিয়ের লাইন লেগেছে। কিছুদিন আগেই মহিলা ভক্তদের হৃদয় ভেঙে সাত পাকে বাঁধা পড়েছেন অনির্বাণ- মধুরিমা। এমনই খবর আছে টলিপাড়া তে। এর পাশাপাশি টলিপাড়াতে এও খবর আছে ফেব্রুয়ারি তে বিয়ের পিড়িতে বসতে চলেছেন নিল-ত্রিনা এবং প্রমিতা- রুদ্রজিত। এখন খুব শীঘ্রই বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছে অঙ্কুশ হাজরা। অঙ্কুশ কে নিজের মুখে শোনা গেছে এমন কথা ।

শীঘ্রই বিবাহিতদের দলে নাম লেখাচ্ছে অঙ্কুশ হাজরা। এমনটাই বলতে শোনা গেল তাকে নিজের মুখে। ‘বিবাহ অভিযান’ কো স্টার অনির্বাণ কে এমন কথা বলে শুভেচ্ছা জানাতে শোনা গেল অঙ্কুশ হাজরা কে। তিনি বলেছেন তাকে দেখে অঙ্কুশের মনে হচ্ছে বিবাহ সেরে ফেলাই ঠিক। তিনি এও বলেছেন যে অনির্বাণ যেন তার বিবাহিত জীবনে যেন সুখে থাকেন। তিনি এই লিখে টুইট করেছেন ‘শুভেচ্ছা বন্ধু। তোমাকে দেখে আমি ঠিক করলাম আমিও সেরে ফেলি। শীঘ্রই যাচ্ছি তোমার দলে। তোমার রিয়েল লাইফ মালতীকে নিয়ে সারা জীবন সুখে থেকো।’’বিবাহ অভিযান’ এ একসাথে দেখা গেছে অনির্বাণ ও অঙ্কুশ কে তার মাধ্যমেই তাদের বন্ধুত্ব শুরু। অঙ্কুশের কোস্টার ছিলেন অনির্বাণ ‘বিবাহ অভিযান’ এ।

তবে এই ধোঁয়াশা এখনো রয়ে গেছে যে আদৌ সাত পাকে বাঁধা পড়বেন কিনা অঙ্কুশ – ঐন্দ্রিলার অফস্ক্রিন জুটি। 2021 এলেই কাটবে এই ধোঁয়াশা বলে জানাযাচ্ছে এখনো পর্যন্ত টলিপাড়ার সূত্রে। রুপোলি পর্দায় শীঘ্রই রাজা চন্দর আসন্ন ছবিতে প্রথমবার পর্দায় জুটিতে দেখা যাবে অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলাকে।

টলিউডের অন্যতম সুপারহিট অফস্ক্রিন জুটি অঙ্কুশ-ঐন্দ্রিলা কে শীঘ্রই বিয়ের পিঁড়িতে বসতে শোনা গেল টলিপাড়ায়। অঙ্কুশ নিজেই লিখে টুইট করেছেন যে তিনি ও ঐন্দ্রিলা খুব শিগগিরই বিয়ের পিঁড়িতে উঠতে চলেছে। ব্যাচেলর লাইফ থেকে বিবাহিত লাইফ হতে চলেছে অঙ্কুশ হাজরার। অঙ্কুশ ও ঐন্দ্রিলা কোনদিনই তাদের প্রেম জীবনের কথা লুকিয়ে রাখেন নি এবং অঙ্কুশ নিজের বিয়ের কথা লুকিয়ে রাখেন নি। তিনি স্বীকার করেছেন তিনি খুব শিগগিরই পিঁড়িতে বসতে চলেছেন ঐন্দ্রিলার সাথে।

তিনি টুইট করার পর তার কোস্টার রাজাকে শুভেচ্ছাবার্তা জানিয়েছে, অঙ্কুশের এই টুইট রীতিমতো শোরগোল ফেলেছে টুইটারে, শুভশ্রী কমেন্ট বক্সে লিখেছেন- ‘ওয়াও! ব্রেকিং নিউজ।’ অঙ্কুশের ‘মৃগয়া’ কো-স্টার দশর্না লিখেছেন- ‘বাহ.. দারুণ খবর’। কোস্টার দের পাশাপাশি তার বক্তব্য হলো তাকে অভিনন্দন জানাতে শুরু করে দিয়েছেন বলে জানা গেল টলিপাড়া থেকে ৷




%d bloggers like this: