বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষে রণক্ষেত্র হেঁড়িয়ার খেজুরি, শুরু রাজনৈতিক তরজা

0 1

শ্রীশা চৌধুরী, কলকাতা: আজ বেলা ২টোয় হেঁড়িয়াতে শুভেন্দু অধিকারীর সভা ছিল। তার আগেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে খেজুরি। বিজেপি কর্মীদের উপরে হামলার অভিযোগ উঠল শাসকদলের বিরুদ্ধে যা অস্বীকার করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। এই হামলায় বেশ কয়েকজন বিজেপি কর্মী আহত হন। পাশাপাশি বেশ কয়েকটি বাসও ভাঙচুর করেছে শাসকদল, এমনই অভিযোগ উঠে এসেছে।

আহতদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে লাঠিচার্জ করে পুলিশ। হামলার ঘটনার প্রতিবাদে পাল্টা পথ অবরোধ করেন বিজেপি কর্মীরা। ঘটনাস্থল থেকে চারজন কে আটক করা হয়েছে। দলীয় কর্মীদের উপর হামলার ঘটনায় বিজেপি নেতা জয়প্রকাশ মজুমদার তৃণমূল কে কটাক্ষ করে বলেন যে, তৃণমূল ভয় পেয়েছে তাই প্রতিবার মিটিং মিছিলে আক্রমণ করছে বিজেপি কে৷ প্রত্যেকদিন এভাবে বিজেপির মিটিং-মিছিলের উপর তৃণমূলের গুন্ডাবাহিনী হামলা চালাচ্ছে। কিন্তু এভাবে কি গণতন্ত্র আটকানো যায়?

তিনি আরও বলেন, “মমতা ব্যানার্জি, তৃণমূল কংগ্রেস কাকে ভয় পাচ্ছে? খেজুরি সহ অন্যান্য জায়গায় বিজেপি কর্মীদের উপর আক্রমণ প্রমাণ করে যে তৃণমূল কংগ্রেস ভয় পেয়েছে। রাজ্যের আইন-শৃঙ্খলা শাসকদলের হাতে। জঙ্গলরাজে পরিণত হয়েছে গোটা রাজ্য।”

অন্যদিকে তৃণমূল নেতা তাপস রায় বলেন, “সারা ভারতে গত ১৫-১৬ বছর ধরে একটা অস্থিরতা তৈরি করেছে। এবার বাংলাতেও অস্থিরতা তৈরি করছে। অশান্তি ছড়াচ্ছে বিজেপি। সেইসঙ্গে এখন যাঁরা বিজেপিতে যাচ্ছেন, তাঁরাও আছেন। জনতাকে ওরা দেখানো-বোঝানোর চেষ্টা করছে, আমরা করছি। প্ররোচনা দিচ্ছে ওরা। কোনওভাবেই এই হামলার সঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেস জড়িত নয়। বিজেপি নিজেরাই নিজেদের উপর হামলা চালিয়ে ইস্যু করছে। ওদের পরিকল্পিত এটা।”

Leave A Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: