“নষ্টালজিয়ায়” কলকাতা ন্যাশনাল মেডিকেল কলেজ

অন্তরা সুতার, কলকাতা, এসপ্লাস নিউজ: ন্যাশানাল মেডিক্যাল কলেজের ইতিহাসে চলতি ফেব্রুয়ারি মাসটি খুব গুরুত্বপূর্ণ। ১৯২৭সালে ২০ তারিখ কলকাতার পৌরসংস্থার তৎকালীন মহানাগরিক যতীন্দ্রমোহন সেনগুপ্ত ১৫০ শয্যার তিনতলা হাসপাতালের নতুন নামকরণ করেন চিত্তরঞ্জন হাসপাতাল।

১৯০৭ সালে ডা, সুবোধ কুমার মল্লিক বউবাজার স্ট্রীটে যে রয়াল কলেজ অফ ফিজিশিয়ানস অ্যান্ড সার্জেন্স প্রতিষ্ঠা করেন তাই ১৯১১ সালে মহারাজা মনীন্দ্র চন্দ্র নন্দীর দান করা আপার সার্কুলার রোডের জমিতে ৩০ শয্যার ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ অফ ইন্ডিয়া গড়ে ওঠে।বিবর্তনের হাত ধরে এই হাসপাতাল ১৯৬৪ সালে ক্যালকাটা ন্যাশনাল মেডিক্যাল ইনস্টিটিউটের নাম বদলে ক্যালকাটা ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ রাখা হয়। ১৯৭৬ সালে রাজ্য সরকার এই হাসপাতাল অধিগ্রহণ করে।

শনিবার কলকাতার ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজে পালিত হলো ৬৯তম রিউনিয়ন নস্টালজিয়া-২০২০। সাংবাদিকেরা আমন্ত্রিত ছিলেন এই অনুষ্ঠানে । উদ্যোক্তাদের পক্ষে জানানো হয়, এই বিনোদন মূলক মিলন মেলা শুধুমাত্র আনন্দ ও অনুষ্ঠান করার জন্য নয়,পারস্পরিক ঐকান্তিক মানসিক আদানপ্রদানের ও অনুষ্ঠান।

প্রাক্তন ছাত্রদের আলিমনি সংগঠনের সভাপতি ডা,শান্তনু ভক্ত জানান, গান্ধীজির অহিংস আন্দোলনের সঙ্গে জড়িত এই প্রতিষ্ঠানের একটা ঐতিহাসিক যোগসূত্র আছে। স্বাধীনতার পর রাজ্য সরকার হাসপাতাল অধিগ্রহণ করার পর প্রাক্তন ছাত্রদের এক সংগঠনের গড়ে ওঠে। এই বছর ৬৯তম বর্ষ।




%d bloggers like this: