কম খরচে ঘুরে আসতে পারেন মৌসুনি আইল্যান্ড

0 1

ছবিঃ মৌসুনি আইল্যান্ড

অসীম তালুকদার (নদীয়া)এসপ্লাসনিউজঃ প্রায় বছর খানেক আগেই এই নাম না জানা, অচেনা, নির্জন দ্বীপের সন্ধান পাই ফেসবুকের একটি গ্রুপ থেকে। আর ওই অচেনা, অজানা, নির্জন সমুদ্র সৈকতকে উপভোগের জন্য মন ব্যাকুল হয়ে ওঠে। যার একাধিক কারনের মধ্যে অন্যতম কারন হচ্ছে এ্যাডভেন্চার টেন্ট।
ছবিঃ মৌসুনি আইল্যান্ড

আর আমি কোনোদিন টেন্ট এ রাত থাকিনি। তারপর শুরু হয় ভ্রমণের সঙ্গী খোঁজার পালা, স্কুল, কলেজ, পাড়ার বন্ধু ও দাদারা কেউই ঠিক খুশী নয় এই অচেনা নির্জন জায়গায় ঘোরার বিষয়টা নিয়ে। যদিও আমার অচেনা, অজানা জায়গায় ঘোরার আগ্রহ বেশি। তারপর আর কিছুদিন চুপচাপ থেকে একাই যাবো ঠিক করলাম কিন্তু বুকিং করতে গিয়ে জানতে পারলাম একজনের বুকিং হয়না। তারপর মন খারাপ করে ভুলেই গেছিলাম মৌসুনি দ্বীপের কথা।
ছবিঃ মৌসুনি আইল্যান্ড

তো আলটিমেট চললাম খোঁজ পাওয়ার প্রায় ১ বছর পর পুজো কাটিয়ে বিজয়ার একদিন পরেই বুধবার রাতে ৭ই জানুয়ারি । শিমুরালি থেকে ২.৩৮ এ লালগোলা ট্রেন ধরে শিয়ালদহ, শিয়ালদহ থেকে ৫.১২ নামখানা লোকাল (টিকিট ২৫ টাকা) ধরে নামখানা। নামখানা নেমে এতটা পথ আসতে আসতে একপ্রকার ক্লান্তই হয়ে গেছিলাম কিন্তু, সেই ক্লান্তিতে কেমন জানো একটা অদ্ভুত আনন্দ ছিল।
ছবিঃ মৌসুনি আইল্যান্ড

যাইহোক তারপর নামখানা থেকে ৬০ টাকায় টোট ধরে ইজ্জুতি ঘাট পার হয়েছিলাম ৷ আবার ৩০ টাকায় টোটো ধরে সোজা মৌসুনি আইল্যান্ড এর এ্যাডভেন্চার ক্যাম্প ৷ আমাদের ২ খানা এ্যাডভেঞ্চার তাবু ভাড়ায় নিলাম (১২০০ টাকা খাওয়া দাওয়া সহ) আর ১ খানা ফ্যামিলি তাবু (১৩০০ টাকা খাওয়া দাওয়া সহ) ছিল। আপনিও চাইলে এই শীতের মৌসুমে বেড়িয়ে আসতে পারেন ৷ কিছু না হোক একটা রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা থাকবেই ৷

Leave A Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: